শার্শায় সরকারি জায়গা দখলের অভিযোগের সংবাদ প্রকাশিত হওয়ায় ভূমি দস্যু মহিবুরের গাত্রদাহ শুরু

ক্রাইম রিপোর্ট

এম সাঈদ, বেনাপোল / শার্শা ।।
যশোরের শার্শার জামতলায় সরকারি জায়গা দখলে নিয়ে ভবন নির্মাণের অভিযোগের সংবাদ প্রকাশিত হওয়ায় ভূমি দস্যু মহিবুরের গাত্রদাহ শুরু হয়েছে। ভবন নির্মাণের কাজ চালিয়ে যেতে বিভিন্ন মহলে তিনি শুরু করেছেন দৌড় ঝাঁপ। মোটা অংকের টাকা দিয়ে ভূমি অফিসের কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে গোপনে তার কাগজ পত্র বৈধ করার পায়তারা চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। এ দিকে  বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশিত হওয়ার পর মুখ খুলতে শুরু করেছে এলাকাবাসী। কেচো খুড়তে বেরিয়ে এসেছে সাঁপ। সূত্র জানায়, ভূমি দস্যু মহিবুর তার নির্মাধীন ভবন ছাড়াও নির্মাধীন ভবনের পাশের একাধিক ভবন সরকারি রাস্তার জায়গা দখল করে নির্মাণ করেছেন। একের পর এক তিনি সরকারি জায়গা দখল করে  ভবন নির্মাণ করে চললেও সংশ্ল্যিষ্ট কর্তৃপক্ষ নিরব থাকায় সচেতন মহলে চরম ক্ষোভের  সৃষ্টি হয়েছে। তারা ভূমি দস্যু মহিবুরের সরকারি জায়গা দখল করে নির্মাণ করা ভবন উচ্ছেদ করতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার, ভূমি মন্ত্রালয় ও সড়ক বিভাগসহ সংশ্ল্যিষ্ট কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন। উল্লেখ্য, শার্শা উপজেলার বাগআঁচড়া ইউনিয়নের সামটা গ্রামের জামতলা নামক স্থানে যশোর – সাতক্ষীরা মহাসড়কের পাশে সরকারি রাস্তার জায়গা দখল করে অবৈধভাবে বহুতল ভবন নির্মাণের কাজ চালিয়ে যাচ্ছে ঐ গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে ভূমি দস্যু মহিবুর। ফলে যশোর – সাতক্ষীরা মহাসড়কের পাশের জামতলার জনবহুল এই এলাকায় যানজট ও সড়ক দূঘর্টনা হওয়ার আশঙ্কা করছেন সচেতনমহল। এ বিষয়ে অভিযুক্ত মহিবুরের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন আমার জমি দলিল ছাড়া কম রেকর্ড হয়েছে। তাই জমি টিকানোর জন্য আমি সব জায়গায় যাচ্ছি। এ ব্যপারে উপজেলা সহকারী কমিশনার ( ভূমি ) মৌসুমি জেরিন কান্তা বলেন, বাগআঁচড়া ভূমি অফিসের নায়েব ঘটনাস্থলে গিয়েছিল। সরকারি বা সড়কের জমিতে কাজ না করতে বলা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *