আশুলিয়ায় অপরিকল্পিত বাসা বাড়ি নির্মাণ-ড্রেন ও রাস্তার বেহাল অবস্থায় জনগণের চরম ভোগান্তি!

সারাদেশ

হেলাল শেখঃ ঢাকার প্রধান শিল্পা ল আশুলিয়ার জামগড়াসহ বিভিন্ন এলাকায় অপরিকল্পিত বাসা বাড়ি নির্মাণ- ড্রেন ও রাস্তার বেহাল অবস্থায় পোশাক শ্রমিকসহ জনগণের চরম ভোগান্তি।
রবিবার (২৩ জানুয়ারি ২০২৩ইং) বিকেল ৩টার দিকে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ঢাকার আশুলিয়ার বাইপাইল-আব্দুল্লাহপুর সড়কের জামগড়া চৌরাস্তা থেকে রাস্তার দুইপাশের ফুটপাত হকারদের দখলে রয়েছে। ড্রেনেজ ব্যবস্থা ভেঙ্গে পড়েছে, পাশে সরকারি নয়নজুলি খালটিও প্রভাবশালিদের দখলে। অন্যদিকে জামগড়ার বাগবাড়ি রোডের করিম নগরে অবস্থিত আব্দুল করিম মোল্লা জামে মসজিদ ও মোল্লা বাড়ি জামে মসজিদ এবং ভুঁইয়া বাড়ি জামে মসজিদসহ একাধিক জামে মসজিদে যাওয়ার রাস্তা ও আশপাশের রাস্তার বেহাল অবস্থা। বাসা বাড়ির ময়লা পানি রাস্তায় ফেলার কারণে নামাজিদের পবিত্র পোশাক নষ্ট হওয়াসহ নানারকম সমস্যা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। জামগড়া ভুঁইয়া বাড়ি জামে মসজিদে যাওয়ার রাস্তা ও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের রাস্তার বেহাল অবস্থার কারণে এসব মসজিদের নামাজিদের নামাজ পড়তে যাওয়া আসার সময় অটোরিক্সাসহ বিভিন্ন গাড়ির চাকায় ময়লা ও নোংরা পানি ছিটে পড়ে পবিত্র পোশাক নষ্ট হওয়াসহ নানারকম সমস্যার কথা জানায় স্থানীয় বাসিন্দারা।
অন্যদিকে আশুলিয়ার ইয়ারপুর ইউনিয়নের বেরুণ তেঁতুল তলা, জামগড়াসহ বেশিরভাগ রাস্তার পাশে বাঁশের মাচাল দিয়ে রেখেছে ড্রেনের উপর, অনেক স্থানে খোলা ড্রেন। মহাসড়ক ও শাখা রোডগুলোর বেশ কয়েকটি রাস্তায় মানুষের চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে। প্রায় বেশিরভাগ রাস্তার বেহাল অবস্থা। অন্যদিকে সরকারি আইনের তোয়াক্কা না করে অপরিকল্পিত ভাবে বাড়ি ঘর নির্মাণ করাসহ সরকারি রাস্তা ও ফুটপাত দখল করে নিয়েছে প্রভাবশালীরা, কিছু মার্কেটের মালিকরাও হকারদের কাছ থেকে মোটা অংকের অর্থ নিয়ে থাকেন আর সংশ্লিষ্ট প্রশাসন নিরব ভুমিকায় থাকার কারণে এলাকাবাসী নাগরিক সুবিধা থেকে বি ত হচ্ছেন বলে অনেকেই জানান।
কবির হোসেন মোল্লা বলেন, আশুলিয়ার ইয়ারপুর ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের জামগড়া করিম নগর আব্দুল করিম মোল্লা জামে মসজিদে যাওয়া আসার রাস্তার বেহাল অবস্থা। সামান্য বৃষ্টি হলে রাস্তায় অনেক পানি হয়, এলাকায় ড্রেনেজ ব্যবস্থা না থাকায় বৃষ্টি হলেই বাড়ি ঘরের ময়লা পানি এবং পোশাক কারখানার ময়লা পানি রাস্তায় ছেড়ে দেওয়ার কারণে রাস্তায় সবসময় পানি জমে থাকে, এখন শীতকাল বৃষ্টি নেই, তাই রাস্তা ও ড্রেনের কাজ করার সঠিক সময়। তিনি আরও বলেন, আশুলিয়া এলাকায় অবস্থিত নয়নজুলি খালটিও প্রভাবশালীদের দখলে থাকার কারণে পানি যাওয়ার জায়গা নেই। কিছু রাস্তায় গাড়ি চলাচলের সময় পানি ছিঁটকে এসে মানুষের শরীরে লাগে আর নামাজিদের পোশাক নষ্ট করে। এই ময়লা পানি মানুষের শরীরে লাগলে চুলকানিসহ নানারকম রোগ হয়।
এ ব্যাপারে ইয়ারপুর ইউনিয়ন পরিষদের ১নং ওয়ার্ডের মেম্বার হাজী হালিম মৃধা বলেন, আশুলিয়ার বাইপাইল থেকে জিরাবো সড়ক, জামগড়া-বাগবাড়ি রোড, জামগড়া-মধ্যপাড়া থেকে শাহজাহান মার্কেট পর্যন্ত এবং জামগড়া হিয়ন মোড় থেকে মনির মার্কেটের রাস্তার মুখ পর্যন্ত, জামগড়া-সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় রোড ও মোল্লাবাড়ি রোডসহ বিভিন্ন রোডের পাশে অনেকেই অপরিকল্পিত ভাবে বাড়ি ঘর উঁচু করে নির্মাণ করায় রাস্তা নিচু হয়ে গেছে, এসব কাজের ব্যাপারে ইয়ারপুর ইউনিয়ন পরিষদের সম্মানিত চেয়ারম্যান সুমন আহমেদ ভুঁইয়ার সাথে আলোচনা করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।
উক্ত ব্যাপারে ঢাকার আশুলিয়া থানা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও বর্তমানে আশুলিয়ার ৪নং ইয়ারপুর ইউনিয়ন পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান শামীম আহমেদ সুমন ভুঁইয়া গণমাধ্যমকে বলেন, ড্রেন, রাস্তার কাজ নির্মাণ করা হবে এবং নয়নজুলি খালটি উদ্ধার করাসহ অতি দ্রæত কাজ শুরু করা হবে। তিনি এলাকাবাসী সকলের সহযোগিতা ও দোয়া চেয়েছেন। তিনি জানান, কয়েক দিন আগে উক্ত বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের সাথে আলোচনা হয়েছে, জনগণের স্বার্থে জনতার চেয়ারম্যান সুমন ভুঁইয়া কাজ করবেন বলে জানিয়েছেন।
বাংলাদেশ সরকারের দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডাঃ এনামুর রহমান বলেছেন, এলাকাবাসী ও জনপ্রতিনিধিসহ দলীয় নেতা কর্মীরা সহযোগিতা করলে নয়নজুলি খালটি উদ্ধার করাসহ ড্রেনেজ ব্যবস্থা ও রাস্তার কাজ দ্রæত শুরু করা হবে। তিনি আরও বলেছেন, চলমান রাস্তার কাজ করা হচ্ছে, সরকার উন্নয়নমূলক কাজ করে যাচ্ছে। তিনি আরও বলেছেন, উন্নয়নমূলক যেকোনা কাজে জনগণের পাশে আমি আছি, থাকবো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *